যে কারণে প্রযোজনা সংস্থা খুলেছিলেন দেব

দেব

টলিউড তারকা দীপক অধিকারী দেবের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ‘দেব এন্টারটেনমেন্ট ভেঞ্চার্স’-এর বয়স এখন চার বছর। এই সংস্থার মাধ্যমেই ‘চ্যাম্প’, ‘ককপিট’, ‘কবীর’-এর মতো জনপ্রিয় সব চলচ্চিত্র মুক্তি পেয়েছে। সম্প্রতি ভারতীয় আনন্দবাজার পত্রিকার সঙ্গে সাক্ষাৎকারে দেব জানালেন, নিজের পছন্দ মতো গল্পের চলচ্চিত্র পাচ্ছিলেন না বলেই ‘দেব এন্টারটেনমেন্ট ভেঞ্চার্স’ খোলার সিদ্ধান্ত নেন তিনি।

দেব বলছেন, নিজের প্রযোজনা সংস্থা থাকায় যে গল্পই মাথায় এসেছে, সবই চলচ্চিত্রে রূপ দিতে পারছেন তিনি। তিনি বলেন, ‘‘বছরে যদি চারটি ছবি হত, তার মধ্যে তিনটির ডিভিডি আমাকে ধরিয়ে দেওয়া হত। বলা হত, এই ছবিগুলির রিমেক হবে বাংলায়। দুই অথবা তিন বছর পরে গিয়ে হয়তো ‘চাঁদের পাহাড়’-এর মতো একটি ছবি হত। যেখানে বিশ্ব চলচ্চিত্রের পরিসর এত প্রসারিত, সেখানে আর অন্যের নকল করা ছবি বানানোর মানে হয় না।’’

হিন্দির পাশাপাশি দক্ষিণী চলচ্চিত্র অঙ্গনেও এখন মৌলিক চলচ্চিত্রের বিশাল ক্ষেত্র তৈরি হয়েছে বলে মনে করেন দেব। তার ভাষায়, ‘‘সেখানে অন্যের এঁটো খাচ্ছি আমরা।’’ বাংলা বাণিজ্যিক চলচ্চিত্রের এই ধারায় পরিবর্তন আনার প্রচেষ্টা থেকেই নিজের প্রযোজনা সংস্থা দাঁড় করানোর ঝুঁকি নিয়েছিলেন।

দেব জানান, বক্সিং নিয়ে তার ‘চ্যাম্প’ চলচ্চিত্রের পর বলিউডেও অনেকে তার পদাঙ্ক অনুসরণ করছেন। ‘ককপিট’ চলচ্চিত্রে যে ভাবে তিনি বিমানের খুঁটিনাটি দেখিয়েছেন, বাংলা চলচ্চিত্রে তা আগে ঘটেনি বলে তার দাবি। আর ‘কবীর’ চলচ্চিত্রের শুটিং হয়েছিল চলন্ত ট্রেনের ভেতর। দেব বলছেন, ‘দেব এন্টারটেনমেন্ট ভেঞ্চার্স’-এর মাধ্যমে বাংলা চলচ্চিত্রকে আন্তর্জাতিক অঙ্গনে আলাদা পরিচিতি দিতে চান তিনি।

এমন আরো সংবাদ

রিপ্লাই দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন
আপনার নাম লিখুন

3 × five =

সর্বশেষ বিনোদন