বেরিয়েছে ‘লাল মোরগের ঝুঁটি’র ট্রেলার

 

‘লাল মোরগের ঝুঁটি’র একটি দৃশ্য

২০১৪-১৫ অর্থবছরে সরকারি অনুদানপ্রাপ্ত ‘লাল মোরগের ঝুঁটি’ গত ৭ নভেম্বর সেন্সর বোর্ড ছাড়পত্র পায়। ১০ ডিসেম্বর চলচ্চিত্রটি মুক্তি পাওয়ার সম্ভাবনার কথা জানিয়েছিলেন নির্মাতা নূরুল আলম আতিক। গত ২০ নভেম্বর চলচ্চিত্রটির অ্যানিমেশন টিজার মুক্তি পেয়েছিলো। আর আজ (২৫ নভেম্বর) সন্ধ্যা ৭টায় চলচ্চিত্রটির ট্রেলার প্রকাশিত হয়েছে।

২ মিনিট ২ সেকেন্ড দৈর্ঘ্যের এই ট্রেলারটি নির্মাণ করেছেন রাশিদ শরীফ শোয়েব। চ্যানেল আই অনলাইনকে তিনি বলেন, “স্বাধীনতার ৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষে আমরা মুভিটা নিয়ে হাজির হচ্ছি। এটা একটা আনন্দের বিষয়। আর ১১ বছর পর আতিক ভাইয়ের মুভি দেখবো বড় পর্দয়। আমি ব্যক্তিগতভাবে সিনেমার ট্রেলারে সবকিছু বলে দেওয়ার পক্ষে না। তাই ট্রেলারটা সেইভাবে বানানো। যেহেতু আতিক ভাইয়ের সঙ্গে দীর্ঘ দিনের একটা জার্নি আছে মুভিটা নিয়ে তাই প্যানেলে বসে গেলাম। এভাবেই তৈরি হলো ট্রেলার।’’

পাণ্ডুলিপি কারখানা প্রযোজিত ‘লাল মোরগের ঝুঁটি’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন লায়লা হাসান, আহমেদ রুবেল, আশনা হাবিব ভাবনা, অশোক ব্যাপারী, আশীষ খন্দকার, জয়রাজ, শিল্পী সরকার, ইলোরা গওহর, জ্যোতিকা জ্যোতি, দিলরুবা দোয়েল, স্বাগতা, শাহজাহান সম্রাট, দীপক সুমন, খলিলুর রহমান কাদেরী, সদ্য প্রয়াত অনন্ত মুনির, সৈকত, যুবায়ের, আশেক-মাশেক, মতিউল আলম, হাসিমুন সহ কুষ্টিয়া, টাঙ্গাইল এবং গৌরীপুর এলাকার সাধারণ মানুষ। পরিচালক নিজেই চলচ্চিত্রের কাহিনি, চিত্রনাট্য ও সংলাপ লিখেছেন। ২০১৬ সালে চলচ্চিত্রটির শুটিং শুরু হয়েছিলো।

নিজের দ্বিতীয় চলচ্চিত্র ‘লাল মোরগের ঝুঁটি’র প্রেক্ষাপট সম্পর্কে আতিক বলেন, “১৯৭১ সাল। বাংলাদেশ এক বন্দিশালা। বিহারি–অধ্যুষিত ছোট এক শহর। সেখানে ব্রিটিশদের গড়া বিমানবন্দর সচল করতে সেনাবাহিনী আসে। পাকিস্তান সেনাবাহিনীর উপস্থিতিতে জনপদে ঘটে যাওয়া কাহিনি নিয়ে নির্মিত হয়েছে ‘লাল মোরগের ঝুঁটি’। আমাদের সিনেমায় মুক্তিযুদ্ধ একরৈখিকভাবে উপস্থাপিত হয়, এর বাইরেও অসংখ্য প্রেক্ষাপট রয়েছে, ‘লাল মোরগের ঝুঁটি’ তেমন একটি প্রচেষ্টা।’’

এমন আরও সংবাদ

রিপ্লাই দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন
আপনার নাম লিখুন

13 − 6 =

সর্বশেষ বিনোদন