রাশিয়ার সিনেমায় অভিনয় করেছিলেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট!

ভলোদিমির জেলেনস্কি

রাশিয়া ও ইউক্রেনের মধ্যে যুদ্ধ চলছে, সবার চোখ এই দুই দেশর পরিস্থিতির দিকে। সারাবিশ্বে এখন আলোচিত দুটি নাম, রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন আর ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি। পুতিনকে কম বেশি সবাইই চেনে। কিন্তু ভলোদিমির জেলেনস্কি সম্পর্কে খুব মানুষ খুব জানে। তাই বলে কিন্তু তাকে অবহেলা করার সুযোগ নেই। প্রেসিডেন্ট পদের বাইরে তার আছে অনন্য এক পরিচয়।

ভলোদিমির জেলেনস্কি ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট হন ২০১৯ সালে। অনেকেই জানে না, রাষ্ট্রপতি হওয়ার আগে তিনি একজন কৌতুক অভিনেতা ছিলেন! ১৭ বছর বয়সে তিনি একটি স্থানীয় কমেডি প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণ করেছিলেন। সেখান থেকে তিনি ইউক্রেনের দলের হয়ে নিজের দক্ষতা প্রদর্শনের সুযোগ পান। তার এই দলটি কেভিএনের মেজর লিগে ১৯৯৭ সালে চ্যাম্পিয়ন হয়েছিল।

এরপর ভলোদিমির জেলেনস্কি নিজেই নতুন একটি দল গঠন করেন। এই দলটি মেজর লিগে অংশগ্রহণ করে এবং ১৯৯৮ থেকে ২০০৩ সাল পর্যন্ত ইউক্রেনের কেভিএন লিগের সর্বোচ্চ আয়কারী দল হয়ে ওঠে। জেলেনস্কির দলটি ২০০৩ সালে ইউক্রেনের টিভি চ্যানেল ওয়ান প্লাস ওয়ান-এর জন্য টিভি শো তৈরি করা শুরু করে।

ভলোদিমির জেলেনস্কি ২০০৮ সালে ‘লাভ ইন দ্য বিগ সিটি’ নামের একটি ফিচার সিনেমায় কাজও করেছিলেন। এরপর তিনি এই ছবির পরের পর্ব ‘লাভ ইন দ্য বিগ সিটি টু’-তেও কাজ করেন।

‘সার্ভেন্ট অফ দ্য পিপল’-এর পোস্টারে জেলেনস্কি

ব্রিটিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি বলছে, সিনেমার সাফল্যের পর জেলেনস্কি অভিনয়কে ক্যারিয়ার হিসেবে বেছে নেন। ‘অফিস রোমান্স’ ও ‘আওয়ার টাইম’-এর মতো চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন এই প্রেসিডেন্ট। তার অভিনীত চলচ্চিত্র ‘রিজেভস্কি ভার্সেস নেপোলিয়ন’ মুক্তি পায়’ ২০১২ সালে। একই বছরে তার অন্যতম হিট সিনেমা ‘এইট ফার্স্ট ডেটস’ মুক্তি পায়। এই সিনেমার দ্বিতীয় ও তৃতীয় পর্ব মুক্তি পেয়েছিল যথাক্রমে ২০১৫ ও ২০১৬ সালে।

ভলোদিমির জেলেনস্কি টিভি চ্যানেল ইন্টার-এর একজন প্রযোজক ছিলেন। ২০১৪ সালে তিনি রুশ শিল্পীদের ওপর ইউক্রেন সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের নিষেধাজ্ঞার বিরুদ্ধে প্রতিবাদ করেছিলেন। কারণ ভলোডিমির জেলেনস্কির বেশিরভাগ কাজই ছিল রুশ ভাষার। তার প্রথম ইউক্রেনীয় ভাষার চলচ্চিত্র ছিল ‘আই, ইউ, হি, শি’।

উল্লেখ্য, ২০১৮ সালে ভলোদিমির জেলেনস্কির রোমান্টিক কমেডি ছবি ‘লাভ ইন দ্য বিগ সিটি টু’ ইউক্রেনে প্রদর্শন নিষিদ্ধ করা হয়েছিল।
ভলোদিমির জেলেনস্কি ইউক্রেনের প্রেসিডেন্টের ভূমিকায় অভিনয়ও করেছেন! সেটি ছিল ২০১৫ সালের ‘সার্ভেন্ট অফ দ্য পিপল’ নামের একটি টিভি শো। এছাড়া ২০১৭ সালে মুক্তি পাওয়া জেলেনস্কির সিরিজ ‘সভ্যাটি’ও ইউক্রেনে নিষিদ্ধ করা হয়েছিল। এই নিষেধাজ্ঞা বহাল ছিল ২০১৯ সালের মার্চ পর্যন্ত।

এমন আরো সংবাদ

রিপ্লাই দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন
আপনার নাম লিখুন

2 × one =

সর্বশেষ বিনোদন