‘জনপ্রিয়তা’ সবচেয়ে বেশি নিউইয়র্কে

গত ৩ ডিসেম্বর বাংলাদেশ সহ ইউরোপ, আমেরিকা এবং ওশেনিয়া অঞ্চলের কয়েকটি দেশে একযোগে মুক্তি পেয়েছে ঢালিউড তারকা আরিফিন শুভ অভিনীত চলচ্চিত্র ‘মিশন এক্সট্রিম’। কপ ক্রিয়েশনের ব্যানারে পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিটের কিছু শ্বাসরুদ্ধকর অভিযানের অনুপ্রেরণায় চলচ্চিত্রটি নির্মিত হয়েছে। দেশের ৫০টি প্রেক্ষাগৃহে ‘মিশন এক্সট্রিম’ মুক্তি পেয়েছে, যার ২০টিই এই চলচ্চিত্র দিয়েই আবারও চালু হচ্ছে। পাশাপাশি আন্তর্জাতিক প্রেক্ষাগৃহগুলোতেও প্রথম সপ্তাহেই সাড়া ফেলে দিয়েছে চলচ্চিত্রটি। ফলে অনেক প্রেক্ষাগৃহে সপ্তাহ শেষের আগেই দ্বিতীয় সপ্তাহে চালানোর ঘোষণা দেয়া হয়েছে, বাড়ানো হয়েছে প্রদর্শনীর সংখ্যাও।

এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ‘মিশন এক্সট্রিম’ চলচ্চিত্রের প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান কপ ক্রিয়েশন জানায়, দেশের বাইরে চলচ্চিত্রটির জনপ্রিয়তা সবচেয়ে বেশি নিউইয়র্কে। জ্যামাইকা মাল্টিপ্লেক্স কর্তৃপক্ষ চলচ্চিত্রটি দ্বিতীয় সপ্তাহেও চালানোর ঘোষণা দিয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রে চলচ্চিত্রের পরিবেশক রাজ হামিদ অনলাইন পোর্টাল বাংলা ট্রিবিউনকে বলেন, ‘‘এই প্রেক্ষাগৃহে কোনো সিনেমা দ্বিতীয় সপ্তাহে চলা মানে সেটাকে যুক্তরাষ্ট্রে ‘সুপার হিট’ ধরে নেয়। কেননা, বিশ্বের সব বড় বড় সিনেমা এখানে প্রেস্টিজিয়াস প্রেক্ষাগৃহ হিসেবে মুক্তি দেওয়া হয়। সেখানে আমরা ডিজনির দুটি সিনেমা, ইন্ডিয়ান অন্তিমসহ ডজনখানেক সিনেমার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে দ্বিতীয় সপ্তাহে চালানোর ঘোষণা পেলাম।’’ শহরের রিগাল এস্টোরিয়া ও রিগাল কোর্ট ছাড়াও সানফ্রানসিস্কো সহ বেশ কয়েকটি শহরের প্রেক্ষাগৃহে বেশ সাফল্য পাচ্ছে চলচ্চিত্রটি।

এদিকে ফ্রান্সে ‘মিশন এক্সট্রিম’ চলচ্চিত্রের পরিবেশক রাব্বানি খান জানান, ‘‘প্যারিসের গোমোঁ মাল্টিপ্লেক্সে সিনেমাটি ৩ ডিসেম্বর থেকে প্রথম সপ্তাহের জন্য ৭টি শো বরাদ্দ দিলেও দর্শক সাড়ায় এগিয়ে থাকায় পরবর্তী সপ্তাহের জন্য ৩১টি শো বরাদ্দ দিয়েছে। যেখানে কমেছে ইন্ডিয়ান সিনেমা ‘অন্তিম’-এর শো। গতকাল এ খবরটি পাওয়ার পর থেকে আমরা খুবই এক্সাইটেড। সত্যি কথা বলতে, এখানে দর্শকদের মাঝে সিনেমাটি ব্যাপক সাড়া ফেলেছে।’’

অস্ট্রেলিয়া-নিউজিল্যান্ডের পরিবেশক তানিম-আল মিনারুল মান্নান বলেন, “সিনেমাপ্রেমী দর্শকবৃন্দ উৎসবের আমেজ নিয়ে দেখছে। সিডনির পাশাপাশি রাজধানী ক্যানবেরায় সিনেমাটি চলছে। সব জায়গায় প্রতিটি শো ৭০-৮০ শতাংশ দর্শক থাকছে যা এই কোভিড পরিস্থিতিতেও হাউজফুল হিসেবে ধরা যায়।’’

‘মিশন এক্সট্রিম’ চলচ্চিত্রে শুভ ছাড়াও আছেন তাসকিন রহমান, জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী, সাদিয়া নাবিলা, সুমিত সেনগুপ্ত, রাইসুল ইসলাম আসাদ, ফজলুর রহমান বাবু, শতাব্দী ওয়াদুদ, মনোজ প্রামাণিক, ইরেশ জাকের, মাজনুন মিজান, সুদীপ বিশ্বাস, সৈয়দ আরেফ, রাশেদ খান অপু, দীপু ইমাম, এহসানুর রহমান, ইমরান সওদাগর প্রমুখ। চলচ্চিত্রের কাহিনি, চিত্রনাট্য ও সংলাপ লিখেছেন পুলিশ সুপার সানী সানোয়ার। তার সঙ্গে যৌথভাবে চলচ্চিত্রটি পরিচালনা করেছেন ফয়সাল আহমেদ।

এমন আরো সংবাদ

রিপ্লাই দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন
আপনার নাম লিখুন

18 − fourteen =

সর্বশেষ বিনোদন