যে কারণে বাদ পড়লেন দীঘি

দীঘি। ছবি : সংগৃহীত

‘মানব দানব’ চলচ্চিত্রে ঢালিউড অভিনেত্রী প্রার্থনা ফারদিন দীঘির বদলে চুক্তিবদ্ধ হলেন নবাগত মিষ্টি জাহান শালুক। কলকাতার বনি সেনগুপ্তের বিপরীতে শাপলা মিডিয়া ইন্টারন্যাশনালের ‘মানব দানব’ চলচ্চিত্রে মৌখিকভাবে চূড়ান্ত হওয়ার খবর জানিয়েছিলেন দীঘি। কিন্তু ২৬ সেপ্টেম্বর জানা যায়, তিনটি শর্ত না মানায় দীঘিকে বাদ দিয়ে শালুককে নেওয়া হয়েছে।

অনলাইন নিউজ পোর্টাল চ্যানেল আই অনলাইনকে শাপলা মিডিয়ার কর্ণধার সেলিম খান বলেন, “দীঘিকে প্রথম শর্ত দেওয়া হয় ব্যাক টু ব্যাক শাপলা মিডিয়ার পাঁচটি কাজ করতে হবে। দ্বিতীয় শর্ত দেওয়া হয়, ফেসবুকে বেশি বেশি টিকটক ভিডিও বা ছবি শেয়ার করতে পারবে না। তৃতীয় শর্ত ছিল, ১৭ অক্টোবর থেকে শুটিং করতে হবে। কারণ কলকাতার বনি, রজতভ দত্ত এবং ভরত কল শিডিউল দিয়েছেন। যা পেছানো সম্ভব না। এই সব শর্ত না মেলায় দীঘিকে সিনেমাটিতে নেওয়া হচ্ছে না।”

তবে দীঘি বলছেন, একই সময়ে সরকারি অনুদানের একটি চলচ্চিত্রের শুটিং থাকায় ‘মানব দানব’ চলচ্চিত্রে থাকতে পারছেন না তিনি। শর্তের প্রসঙ্গে বিস্ময় প্রকাশ করে তিনি বলেন, ‘‘আমাকে তো কোনো শর্তই দেয়া হয়নি। ছবিটি করতে পারছি না শিডিউল জটিলতার কারণে।’’

নির্মাতা বজলুর রাশেদ চৌধুরী বলেন, “সিডিউল পেছানো গেলে হয়তো কাজটি করতে পারতেন দীঘি। কিন্তু আমার ছবিতে কলকাতার তিনজন শিল্পী আছেন। তাদের সিডিউল আগে থেকে নেয়া। সুতরাং দীঘিকে নিয়ে কাজটি করা হচ্ছে না।’’

২৫ সেপ্টেম্বর ‘মানব দানব’ চলচ্চিত্রের জন্য চুক্তিবদ্ধ হয়েছেন শালুক। এর আগে তিনি সালাহউদ্দিন লাভলু, আবু হায়াত মাহমুদ প্রমুখ পরিচালকের ডজনখানেক নাটকে, আর অনন্য মামুনের ‘অমানুষ’ চলচ্চিত্রে অভিনয় করেছেন। তিনি বলেন, “আমার চূড়ান্ত স্বপ্ন ছিল নিজেকে বড় পর্দায় দেখা। এ জন্য ছোটবেলা থেকেই নাচ, অভিনয় অনুশীলনের চেষ্টা করেছি। অভিনয়ের কোর্স করেছি। নিজেকে প্রস্তুত করতে ছোট পর্দায় কাজ করেছি।”

জেলেদের সংগ্রামী জীবন নিয়ে ‘মানব দানব’ চলচ্চিত্রের গল্প। শালুক ও বনি ছাড়াও এই চলচ্চিত্রে অভিনয় করছেন শিবা সানু, শতাব্দী ওয়াদুদ, জ্যাকি আলমগীর, কমল পাটেকার এবং কলকাতার রজতাভ দত্ত ও ভরত কল।

এমন আরও সংবাদ

রিপ্লাই দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন
আপনার নাম লিখুন

five × 3 =

সর্বশেষ বিনোদন