শিশুমনে সাংস্কৃতিক দ্বন্দ্ব নিয়ে ‘বিটিএস গার্ল’

শিশু-কিশোরদের মনে সাংস্কৃতিক দ্বন্দ্ব নিয়ে নির্মিত হচ্ছে স্বল্পদৈর্ঘ্য শিশুতোষ চলচ্চিত্র ‘বিটিএস গার্ল’।
অনার্য মুর্শিদের পরিচালনায় ২ সেপ্টেম্বর ‘বিটিএস গার্ল’ চলচ্চিত্রের পরীক্ষামূলক শুটিং শেষ হয়। চলচ্চিত্রটি যৌথভাবে প্রযোজনা করছে সিনেহাট ও মোশন বাংলা। সহযোগী প্রতিষ্ঠান হিসেবে সঙ্গে আছে উজান।
অনার্য মুর্শিদ বলেন, “কিশোর-কিশোরীদের স্বাধীন মন আছে। আমরা অনেক সময় না জেনে, না বুঝে অনেক কিছুই তাদের উপর চাপিয়ে দিই। আমরা শিশু-কিশোরদের মালিক নই, তাদের অভিভাবক মাত্র। কিন্তু এ বিষয়টা আমরা ভুলে গিয়ে তাদের মনের ওপর আধিপত্য বিস্তার করে চলছি। কিশোর মনে সাংস্কৃতিক সংকটের কারণে কী ঘটতে পারে এবং এর সমাধান কী তার উত্তর খোঁজার চেষ্টা করা হয়েছে এ চলচ্চিত্রে।”
‘বিটিএস গার্ল’ চলচ্চিত্রটির অ্যাক্টিং ডিরেক্টরের দায়িত্ব পালন করছেন নাট্যকার মামুনুর রশীদ। চিত্রগ্রহণে আছেন মুজিবর রহমান খান, শব্দ পরিকল্পনায় রবিউল ইসলাম, প্রোডাকশান ডিজাইন ও সম্পাদনায় লায়লা ফেরদৌসী এবং গীতিকার হিসেবে আছেন কাজী আলিম-উজ-জামান। চলচ্চিত্রের প্রধান চরিত্রে অভিনয় করবেন শিশুশিল্পী নায়লা তাজওয়ার স্ফিয়েতা।
প্রযোজক সাজেদুল আজাদ বলেন, “শিশু-কিশোরদের জন্য আমাদের দেশে চলচ্চিত্র নির্মাণ হয় না বললেই চলে। হয়তো অনেকের কাছে এটা অলাভজনক মনে হতে পারে, কিন্তু আমার মনে হয়েছে, এখানেও চাইলে লাভ বের করা সম্ভব। কারণ, ভিজ্যুয়াল কনটেন্টের বড় ভোক্তা কিন্তু শিশু–কিশোরেরাই। লাভ না হলেও কাজটা কাউকে না কাউকে করা উচিত।“
২০২২ সালের শুরুতেই ‘বিটিএস গার্ল’ চলচ্চিত্রটি মুক্তির আশাবাদ জানিয়েছেন নির্মাতা অনার্য মুর্শিদ।

এমন আরও সংবাদ

রিপ্লাই দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন
আপনার নাম লিখুন

8 − one =

সর্বশেষ বিনোদন