কানেও রাজনীতি!

৬ জুলাই থেকে শুরু হয়ে গেছে বিশ্ব চলচ্চিত্রের অন্যতম মর্যাদাপূর্ণ কান উৎসব। ৭৪তম কান চলচ্চিত্র উৎসবের মূল জুরি বোর্ডের প্রধান হিসেবে ছিলেন বিখ্যাত মার্কিন পরিচালক স্পাইক লি। এই চলচ্চিত্র উৎসব নিয়ে এরই মধ্যে উঠে এসেছে রাজনীতির গুঞ্জন। ট্রাম্প-পুতিন-বলসোনারোর মতো বিশ্ব নেতাদের ‘গ্যাংস্টার’ হিসেবে সম্বোধন করেন স্পাইক।

জর্জিয়ার এক সাংবাদিক তার দেশে এলজিবিটি কর্মীদের অধিকার প্রতিষ্ঠায় সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে সেদেশে অবস্থান করা রুশ বাহিনীর হাতে হেনস্তার শিকার হয়েছেন। এই প্রসঙ্গে তিনি জানতে চান, মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠায় সিনেমা সংশ্লিষ্টরা কি ধরনের ভূমিকায় থাকতে চান। এছাড়া চলচ্চিত্রের বাহিরে এসে কর্মী হিসেবে তারা কাজ করেবেন কিনা!

এর উত্তরে পরিচালক স্পাইক এজেন্ট অরেঞ্জ (ডোনাল্ড ট্রাম্প), জাইর বলসোনারো ও ভ্লাদিমির পুতিনকে ‘গ্যাংস্টার’ হিসেবে উল্লেখ করেন।

কৃষ্ণাঙ্গ এ পরিচালক বললেন, ‘এদের মধ্যে কোনো নৈতিকতাবোধ নেই। আমরা এমনই এক পৃথিবীতে বাস করি; আমাদের এসব গ্যাংস্টারদের বিরুদ্ধে কথা বলতে হবে!’

১৯৭৬ সালে কান চলচ্চিত্র উৎসবে স্পাইক লি’র ‘শি’স গটা হ্যাভ ইট’ চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হয়। এবারই প্রথম তিনি এই উৎসবটিতে জুরি প্রধান হিসেবে নির্বাচিত হন।

এমন আরও সংবাদ

রিপ্লাই দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন
আপনার নাম লিখুন

fifteen + 16 =

সর্বশেষ বিনোদন