চুরির অপবাদও শুনতে হয়েছিল মিনিশাকে

বলিউড অভিনেত্রী মিনিশা লাম্বা অভিনয় পারদর্শিতায় অনুরাগীদের মনে জায়গা করে নিয়েছেন। তবে অভিনয় জীবনের শুরুটা মোটেও মিনিশার জন্য সুখকর ছিল না। অনেক বাধা-বিপত্তি সহ্য করতে হয়েছিল তাকে। এমনকি চুরির অপবাদও শুনতে হয়েছিল মিনিশাকে।

মুম্বাইয়ে আসার পর পেয়িং গেস্ট হিসেবে থাকতেন মিনিশা। সেখানে অর্থ চুরি করেন এমন অভিযোগ করা হয় তার বিরুদ্ধে। এ প্রসঙ্গে ইন্ডিয়া ফোরামকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে মিনিশা বলেন, ‘মুম্বাইয়ে আসার পর কোনো কাজ ছিল না। মাসে ৫ হাজার রুপি ভাড়াতে পেয়িং গেস্ট থাকতাম। যার বাড়িতে ভাড়া থাকতাম সেই বাড়ির নারী আমাকে চুরির অপবাদ দিয়ে বলে, আমি তার আলমারি থেকে অর্থ চুরি করেছি।’

মিনিশা আরও জানান, তিনি কোনো চুরি করেননি। তারপরও দুই দিনের মধ্যে বাড়ি খালি করে দিয়ে চলে যেতে বলা হয় তাকে। এটি তার কাছে মান সম্মানের প্রশ্ন ছিল। সেই সময় তার কাছে কোনো অর্থ ছিল না। পরবর্তীতে তিনি ৭ হাজার টাকা দিয়ে একটা ফ্ল্যাট ভাড়া নেন। সেটা খুবই ছোট ছিল, যাতে ছিল একটি মাত্র রুম। কিন্তু এর বেশি কিছু করার সামর্থ্য সেই সময় তার ছিলনা।

মিনিশা লাম্বা ‘দাস কাহানিয়া’, ‘কিডন্যাপ’, ‘ওয়েলডান আব্বা’, ‘হানিমুন প্রাইভেট লিমিটেড’, ‘বাচনা অ্যায় হাসিনো’ প্রভৃতি সিনেমায় অভিনয় করেছেন। তবে বর্তমানে খুব একটা নিয়মিত নন তিনি।

২০১৫ সালে হোটেল ব্যবসায়ী রায়ান থামানকে বিয়ে করেন মিনিশা। কিন্তু ২০১৮ সালের সেপ্টেম্বরে এই দম্পতি পারিবারিক কলহের জেরে আলাদা থাকতে শুরু করেন। গত বছর আগস্টে আনুষ্ঠানিকভাবে তাদের বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটে।

এমন আরও সংবাদ

রিপ্লাই দিন

আপনার মন্তব্য লিখুন
আপনার নাম লিখুন

16 − sixteen =

সর্বশেষ বিনোদন